• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • বৃহস্পতিবার, ২১ মার্চ ২০১৯, ৭ চৈত্র ১৪২৫

ক্রিকেটারদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করেই বিদেশ পাঠাতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

ক্রিকেটারদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করেই বিদেশ পাঠাতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

সেন্ট্রাল ডেস্ক১৬ মার্চ ২০১৯, ১২:৪৮পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

নিউজিল্যান্ডে মসজিদে হামলার ঘটনার প্রেক্ষিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বাংলাদেশ ক্রিকেট দলকে বিদেশে পাঠানোর ক্ষেত্রে নিরাপত্তার বিষয়টি ভালো করে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে পাঠাতে হবে। বিদেশের খেলোয়াড়রা যখন বাংলাদেশে আসে তখন তাদের যথাযথ নিরাপত্তা দেয়া হয়।

শনিবার সকালে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সে কয়েকটি প্রকল্প উদ্বোধনের সময় এ কথা বলেন তিনি। মসজিদে হামলার কারণে নিউজিল্যান্ড সফর সংক্ষিপ্ত করে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল শনিবার রাতে দেশে ফিরে আসছে।

শুক্রবার ক্রাইস্টচার্চের আল নূর মসজিদে স্থানীয় সময় বেলা দেড়টার দিকে জুমার নামাজ আদায়রত মুসল্লিদের ওপর স্বয়ংক্রিয় রাইফেল নিয়ে হামলা চালান ব্রেন্টন। অল্পের জন্য ওই হামলা থেকে বেঁচে যান বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের সদস্যরা। কাছাকাছি লিনউড মসজিদে দ্বিতীয় দফায় হামলা চালানো হয়। দুই মসজিদে হামলায় নিহত ৪৯ জন। এই হামলায় ক্রিকেটাররা অক্ষত থাকলেও তিনজন বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের কাছে শুকরিয়া আদায় করি। আমাদের ক্রিকেট খেলোয়াড়, তাদের এই মসজিদে নামাজ পড়তে যাবার কথা ছিল, তারা গিয়েছিলও। একজন আহত নারী তাদের ঢুকতে দেয়নি।’

‘আগামীতে তাদের যেখানে খেলতে পাঠাব, তাদের নিরাপত্তার বিষয়ে আমরা ভালোভাবে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে পাঠাব। কারণ আমাদের দেশে যারা খেলতে আসে, তাদের আমরা যথাযথভাবে নিরাপত্তা দিই।’

মসজিদে এই হামলার নিন্দা জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, ‘এই ধরনের ঘৃণ্য ঘটনা- যেটা সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদী ঘটনা। যেভাবে একটা ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে ঢুকে মানুষ সেখানে নামাজে ছিল তখন সেখানে তাদের গুলি করে হত্যার মতো জঘন্য কাজ আর কিছু হতে পারে না।’

‘আমি চাই সমগ্র বিশ্ববাসী শুধু এই ঘটনার নিন্দাই প্রকাশ করবে না, সন্ত্রাস যাতে চিরতরে বন্ধ হয় সেই ব্যবস্থা নেবে। যারা জঙ্গি-সন্ত্রাসী, তাদের কোনো ধর্ম নাই, জাতি নাই, দেশও নাই। তারা সন্ত্রাসী, তাদের সন্ত্রাসী হিসেবে দেখে ব্যবস্থা নিতে হবে।’

জঙ্গিবাদ দমনে বাংলাদেশের সাফল্যের কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘অনেক কষ্ট করে আমাদের দেশকে জঙ্গি ও সন্ত্রাসীদের থেকে রক্ষা করতে পেরেছি।’

গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের দ্বিতীয় কাচপুর সেতু, ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের ভুলতায় চার লেইনের ফ্লাইওভার এবং লতিফপুর রেলওয়ে ওভারপাস উদ্বোধন করেন শেখ হাসিনা।

অনুষ্ঠানে বক্তব্যে শেখ হাসিনা নাগরিকদের ট্রাফিক আইন মেনে চলার ওপর জোর দেন।

তিনি বলেন, ‘রাস্তায় নিয়ম কানুন মেনে চলতে হবে। ভবিষ্যতে কী কারণে দুর্ঘটনা ঘটেছে সেটা তদন্ত করে দেখা হবে।’

সড়কে প্রতিযোগিতা করে গাড়ি না চালাতেও চালকদের প্রতি আহ্বান জানান তিনি। দূরপাল্লার গাড়ির চালকদের জন্য বিশ্রামের স্থান রাখতেও সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের নির্দেশনা দেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব মো. নজিবুর রহমানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম ও গওহর রিজভী, সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. নজরুল ইসলাম, বাংলাদেশে জাইকার প্রধান প্রতিনিধি হিতোশী হিরাতা, ঢাকায় জাপানের রাষ্ট্রদূত হিরোইয়াশু ইজোমি।

 

 

টাইমস/এসআই

নারী পথচারীকে ধাক্কা দিয়ে পালানোর সময় আবরারকে চাপা দেয় বাসচালক

নারী পথচারীকে ধাক্কা দিয়ে পালানোর সময় আবরারকে চাপা দেয় বাসচালক

বিইউপি ছাত্র আবরার আহমেদ চৌধুরীকে চাপা দেয়ার আগে সুপ্রভাত পরিবহনের বাসের চালক বাঁশতলায় এক নারী পথচারীকে ধাক্কা দিয়েছিল বলে জানিয়েছে পুলিশ। পুলিশ জানায়, বাঁশতলায় ওই নারীকে ধাক্কা দিয়ে পালানোর সময় যমুনা ফিউচার পার্কের সামনের সড়কে এসে আবার আবরারকে চাপা দেয় বাসটি।

সাত দিনের আলটিমেটাম দিয়ে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন স্থগিত

সাত দিনের আলটিমেটাম দিয়ে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন স্থগিত

রাজধানীর যমুনা ফিউচার পার্কের সামনে প্রগতি সরণীতে বাসচাপায় বিইউপির শিক্ষার্থী আবরার আহমেদ চৌধুরী নিহতের ঘটনায় সাত দিনের আলটিমেটাম দিয়ে আন্দোলন স্থগিতের ঘোষণা দিয়েছেন আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা। বুধবার সন্ধ্যা ছয়টার পর রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার সামনের সড়কে এসে তারা এই ঘোষণা দেন।

৩৭তম বিসিএস: নিয়োগ পেলেন এক হাজার ২২১ ক্যাডার

৩৭তম বিসিএস: নিয়োগ পেলেন এক হাজার ২২১ ক্যাডার

অবশেষে ৩৭তম বিসিএসে প্রতীক্ষার অবসান হলো। ১ হাজার ২২১ জনকে বিভিন্ন ক্যাডারে নিয়োগের সুপারিশ করে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। বুধবার বিকেলে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। এর মাধ্যমে এই বিসিএসের অপেক্ষার অবসান হলো। এখন এই ক্যাডারদের বিভিন্ন স্থানে পদায়ন শুরু হবে।

জাতীয়

সিরাজগঞ্জে হানিফ পরিবহনের দুই বাসের সংঘর্ষে নিহত চার

সিরাজগঞ্জে হানিফ পরিবহনের দুই বাসের সংঘর্ষে নিহত চার

সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলায় হানিফ পরিবহনের দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে চারজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও ১৫ জন। বুধবার বিকেলে বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম পাড়ে উপজেলার ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়কের সয়দাবাদ এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম থানার ওসি সৈয়দ সহিদ আলম জানান, বিকেলে হানিফ পরিবহনের একটি বাস ঢাকা থেকে উত্তরবঙ্গের দিকে যাচ্ছিল।

জাতীয়

সাত দিনের রিমান্ডে সুপ্রভাত বাসের চালক

সাত দিনের রিমান্ডে সুপ্রভাত বাসের চালক

যমুনা ফিউচার পার্কের সামনের প্রগতি সরণিতে সড়ক দুর্ঘটনায় শিক্ষার্থী আবরার আহমেদ চৌধুরী নিহত হওয়ার ঘটনায় করা মামলায় গ্রেপ্তার সুপ্রভাত পরিবহনের বাসের চালক সিরাজুল ইসলামের সাত দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। পুলিশের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বুধবার ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালত তার রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

জাতীয়

আবরারের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা প্রদানের নির্দেশ

আবরারের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা প্রদানের নির্দেশ

বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের (বিইউপি) শিক্ষার্থী আবরার আহমেদ চৌধুরীকে সাত দিনের মধ্যে ১০ লাখ টাকা দিতে সুপ্রভাত পরিবহন কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। বুধবার এক রিটের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি কে এম হাফিজুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ রুলসহ এ নির্দেশ দেন।

বিনোদন

সাড়ে চার লাখ টাকা হোটেল বিল না দিয়ে পালালেন অভিনেত্রী পূজা

সাড়ে চার লাখ টাকা হোটেল বিল না দিয়ে পালালেন অভিনেত্রী পূজা

ভারতীয় অভিনেত্রী পূজা গান্ধীকে নিয়ে যেন বিতর্কের শেষ নেই। এবার তার বিরুদ্ধে অভিযোগ, বেঙ্গালুরুর বিলাসবহুল হোটেলে বিল না দিয়েই চলে পালিয়ে গেছেন তিনি। ভারতীয় গণমাধ্যমের খবর, পূজা বেশ কয়েকদিন বেঙ্গালুরুর হোটেলে ছিলেন। হোটেলে বিল বাড়তেই তিনি সবার চোখ এড়িয়ে হোটেল ছেড়ে চলে যান। হোটেল ম্যানেজমেন্ট এ কথা জানতে পেরে স্থানীয় থানায় এই অভিনেত্রীর নামে অভিযোগ দায়ের করেন।

জাতীয়

পার্বত্য এলাকায় উল্লেখযোগ্য যত হত্যাকাণ্ড

পার্বত্য এলাকায় উল্লেখযোগ্য যত হত্যাকাণ্ড

পাহাড়ে সন্ত্রাসী গ্রুপের অপতৎপরতায় জীবনহানি সাধারণ ঘটনায় পরিণত হয়েছে। পার্বত্য শান্তিচুক্তির পর পাহাড়ে শান্তি ফিরে আসবে- এমনটিই আশা করা হয়েছিল। কিন্তু পাহাড়ি সংগঠনগুলোর অন্তঃকোন্দল সেই সম্ভাবনাকে প্রশ্নবিদ্ধ করে তুলেছে। পাহাড়ে সংঘাত দানা বেঁধে ওঠে ১৯৭২ সালে। এ সময় পাহাড়িদের রাজনৈতিক অধিকার প্রতিষ্ঠার নামে গড়ে ওঠে মানবেন্দ্র লারমার নেতৃত্বে জনসংহতি সমিতি নামের সংগঠন। ’৭৫ সালে বঙ্গবন্ধুর হত্যার পর জিয়াউর রহমান সরকারের কিছু কর্মকাণ্ড পাহাড়ে অশান্তির দাবানল সৃষ্টি করে। ’৯৭ সালে সম্পাদিত শান্তিচুক্তির আওতায় পার্বত্য তিন জেলায় শান্তি ফিরে আসার সম্ভাবনা দেখা দেয়। কিন্তু জনসংহতি সমিতির একাংশ শান্তিচুক্তির বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে ইউপিডিএফ নামের সংগঠন গড়ে তোলায় পাহাড়ে প্রত্যাশিত শান্তি ফিরে আসেনি।

আন্তর্জাতিক

লুফে নিয়ে আগুন থেকে তিন শিশুকে বাঁচাল পুলিশ

লুফে নিয়ে আগুন থেকে তিন শিশুকে বাঁচাল পুলিশ

একটি বহুতল ভবনে আগুন লাগলে তৃতীয় তলার একটি ফ্লাটে আটকা পরে তিন শিশু। ফায়ার সাভির্সের সহায়তা পৌছাঁতে পৌছাঁতে হয়তো মারাই যেত তারা। কোনো উপায় না দেখে পুলিশ কর্মকর্তাদের কথা মতো একে এক নিচে ঝাপ দেয় তারা। আর মাটিতে দাঁড়িয়ে তাদের লুফে নেন সেই পুলিশ কর্মকর্তারা। খবর এনডিটিভির।     মঙ্গলবার এই অসাধারণ ঘটনাটি ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রের আইওয়া অঙ্গরাজ্যের রাজধানী দেস মইনে।